17.1 C
Düsseldorf

ইইউ ব্লু কার্ড

Must read

ইউরোপীয় ইউনিয়নে কাজ করতে আগ্রহী তৃতীয় দেশের দক্ষ নাগরিকরা ব্লু কার্ড পান৷ এর মাধ্যমে তারা বিভিন্ন সুবিধা ও নিরাপত্তা পেয়ে থাকেন৷ তবে এই কার্ড পাওয়ার জন্য অনেকগুলো শর্ত পূরণ করতে হবে৷

তৃতীয় কোন দেশের বিশ্ববিদ্যালয় স্নাতক বা সমমানের শিক্ষাগত যোগ্যতার নাগরিকরা ইউরোপীয় ইউনিয়নে বসবাস ও কাজের অনুমতি হিসেবে ব্লু কার্ডের যোগ্য হন৷ একটা নির্দিষ্ট সময়ের পর এই কার্ডধারীরা স্থায়ী বসবাসের আবেদন জানাতে পারেন৷

তারা স্বামী বা স্ত্রী, সঙ্গী, সন্তান এবং নির্ভরশীল অন্য স্বজনদের আনতে পারেন৷ তারা পরিবারের অন্যদের অনুমতির স্পন্সরও হতে পারেন৷

আবেদনকারীর কাজের চুক্তির উপর নির্ভর করে ব্লু কার্ডের মেয়াদ এক থেকে চার বছর মেয়াদী হতে পারে৷ পরবর্তীতে তা নবায়ন করা যেতে পারে৷ ব্লু কার্ডধারী ইউরোপীয় ইউনিয়নে দুই বছর বসবাস ও কাজ করার পর ঋণ, অনুদান ও বাসস্থানের মতো কিছু বিষয়ে নাগরিকদের সমান অধিকার লাভ করেন৷

ইউরোপীয় ইউনিয়নের বাইরের দেশের উচ্চ শিক্ষিত, দক্ষ কর্মী অথবা গবেষকদের ব্লু কার্ড দেয়া হয়৷ এক্ষেত্রে নিচের শর্তগুলো অবশ্যই পূরণ করতে হবে৷

আবেদনকারীকে প্রমাণ করতে হবে যে তিনি বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ে পড়াশোনা করেছেন৷
আবেদনকারীকে কাজের চুক্তিপত্র অথবা প্রস্তাব থাকলে তার প্রমাণ দেখাতে হবে৷
ব্লু কার্ড আবেদনকারীকে উচ্চ বেতনধারী হতে হবে৷ যেমন, ২০১৯ সালে জার্মানিতে এজন্য আবেদনকারীর বার্ষিক ন্যুনতম বেতনের শর্ত ছিল ৫৩,৬০০ ইউরো৷ তবে বিজ্ঞান, গণিতসহ কর্মীর অভাব রয়েছে এমন পেশার জন্য তা ৪১,৮০৮ ইউরো পর্যন্ত বিবেচিত৷

ডেনমার্ক ছাড়া ইউরোপীয় ইউনিয়নের সব দেশেই ব্লু কার্ডের জন্য আবেদন করা যায়৷ নির্দিষ্ট দেশের অভিবাসী বিষয়ক কার্যালয়ে আবেদনটি জমা দিতে হবে৷

আবেদনকারী নিজে, চাকরিদাতা অথবা আইনী প্রতিষ্ঠানও আবেদন জমা দিতে পারবে৷

জার্মানিতে আবেদন ফি হিসেবে জমা দিতে হবে ১১০ ইউরো৷ তিন মাসের নবায়নের জন্য দিতে লাগবে ৬৫ ইউরো, এর বেশি হলে ৮০ ইউরো৷ কার্ড নতুন করে তুলতে চাইলে লাগবে ৬০ ইউরো৷

কাজের ক্ষেত্র ও পরিবার ছাড়া ব্লু কার্ডের আর কী সুবিধা রয়েছে?

এই কার্ড পেলে কেউ নিজ দেশে বা ইউরোপীয় ইউনিয়নের বাইরে অন্য কোন দেশে এক বছর সময় কাটাতে পারবেন এবং এতে আপনি কার্ড হারাবেন না৷ সেঙ্গেনভুক্ত কোন রাষ্ট্রে ১৮০ দিন পরপর টানা ৯০ দিন ভ্রমণের সুযোগ পাবেন৷ কারো ব্লু কার্ডের মেয়াদ ১৮ মাস হলে প্রয়োজনে তিনি অন্য রাষ্ট্রে এই কার্ডের আবেদন করতে পারবেন৷

ব্লু কার্ডধারীরা পরিবারের সদস্যদের ভাষা জানা না থাকলেও পারিবারিক পুনর্মিলন ও তাদের স্বামী বা স্ত্রীদের বসবাসের অনুমতির আবেদন করতে পারবেন৷

একটি নির্দিষ্ট সময় পর ব্লু কার্ডধারীরা ইউরোপীয় দেশে স্থায়ী বসবাসের আবেদন করতে পারবেন৷ যেমন, জার্মানিতে কোন ব্লু কার্ডধারী ৩৩ মাসের বেশি কোন উচ্চ পদে কাজ করলে এবং পর্যাপ্ত জার্মান ভাষা জানা থাকলে (বি ওয়ান লেভেল পর্যন্ত) তিনি স্থায়ী বসবাসের জন্য আবদন জানাতে পারবেন৷

ব্লু কার্ড পাওয়া যেমন কঠিন তেমনি কিছু শর্ত পূরণ না হলে তা কেড়ে নেয়া হতে পারে৷ ইউরোপীয় ইউনিয়ন কাউন্সিলের নির্দেশনা অনুযায়ী আবেদনকারী বেশ কিছু কারণে অযোগ্য অথবা প্রত্যাখ্যাত হতে পারেন৷ এর মধ্যে রয়েছে:

আবেদনকারীর নিজ দেশে নির্দিষ্ট কোন পেশায় দক্ষ কর্মীর অভাব থাকলে ‘মেধা পাচার’ বিবেচনায় নিয়ে আবেদন বাতিল হতে পারে৷
আপনার চাকরিদাতা কোন প্রতারণার আশ্রয় নিয়ে থাকলে
আপনার কাগজপত্র ভুয়া প্রমাণিত হলে
জননীতি, জননিরাপত্তা অথবা জনস্বাস্থ্য বিবেচনায় নিয়ে
যদি আপনার যোগ্যতা আর শর্তগুলো পূরণ না করে
আপনার পদে যদি নির্দিষ্ট দেশটির নাগরিক, ইইউ নাগরিক অথবা আগে থেকে বসবাসরত অন্য ইইউ নাগরিক কাজ করার যোগ্য হয়ে থাকেন৷

- Advertisement -spot_img

More articles

মন্তব্য করুন

অনুগ্রহ করে আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে অনুগ্রহ করে আপনার নাম লিখুন

- Advertisement -spot_img

সর্বশেষ আপডেট